মিড ডে মিলের ডালে পোকা, ক্ষোভ স্কুলে স্কুলে, তদন্তের নির্দেশ জেলা প্রশাসনের

আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটিও সাবস্ক্রাইব করে রাখুন বিভিন্ন আপডেট পাওয়ার জন্য।

দুর্গাপুর দর্পণ, দুর্গাপুর, ৯ জুন ২০২১: পোকা ধরা মুসুর ডাল। নিম্নমানের সোয়াবিন, চিনি। ওজনে কম সাবান। জুন মাসের মিড ডে মিল নিয়ে এমন নানা অভিযোগ উঠছে স্কুলে স্কুলে। ইতিমধ্যেই লিখিত অভিযোগ গিয়েছে জেলা প্রশাসনের কাছে। জেলা প্রশাসন তদন্ত শুরু করেছে। বিভিন্ন শিক্ষক সংগঠনের তরফে জানানো হয়েছে, নিম্নমানের সামগ্রী বিলি করতে গিয়ে অভিভাবকদের কথা শুনতে হয়েছে। এমনকি মুখের উপর পোকা ধরা ডাল ছুড়ে ফেলে দিয়েছেন কেউ কেউ।

গত ২৫ মে শিক্ষা দফতর থেকে নির্দেশিকা জারি করে জানানো হয়, জুন মাসে মিড ডে মিলে পড়ুয়াদের ২ কেজি চাল, ১ কেজি আলু, ২৫০ গ্রাম ডাল, ২৫০ গ্রাম চিনি, ১০০ গ্রাম সোয়াবিন ও একটি সাবান দেওয়া হবে। মে মাস পর্যন্ত ১ কেজি করে ছোলা দেওয়া হয়েছিল। এবার তা বন্ধ। তাছাড়া চিনি ও সোয়াবিনের পরিমাণও আগের মাস পর্যন্ত এবারের দ্বিগুণ ছিল। তার উপরে আবার নিম্নমানের সামগ্রী বিলি করায় চরম ক্ষুব্ধ অভিভাবকেরা।

চিনিতে পোকা

জেমুয়া ভাদুবালা বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক জইনুল হক জানান, চিনিতে পোকা রয়েছে। সোয়াবিন অত্যন্ত নিম্নমানের। সাবান ওজনে কম। বিজড়া প্রাথমিক স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক তথা এবিটিএ এর দুর্গাপুর চক্রের সাধারণ সম্পাদক অনির্বাণ বাগচী জানান, অভিভাবকদের অনেক বুঝিয়ে তবে নিতে রাজি হন। তাও দু’জন অভিভাবক পোকা লাগা ডাল ছুড়ে ফেলে দেন। বিজড়া হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক কাজী নিজামউদ্দিন বলেন, ‘‘অন্যবার ভালো মানের খাদ্যসামগ্রী দেওয়া হয়। এবার যা ডাল বা চিনি দেওয়া হয়েছে তা খাওয়ার প্রায় অযোগ্য।’’

অরাজনৈতিক প্রাথমিক শিক্ষকদের সংগঠন UUPTWA এর পশ্চিম বর্ধমান জেলার ভারপ্রাপ্ত যুগ্ম আহ্বায়ক শুভাশিস মন্ডল, রণজিৎ সাহা বলেন, ‘‘জেলা শাসককে আমরা চিঠি দিয়ে এর বিহিত চেয়েছি। রাজ্য সরকার যথাযথ মূল্য প্রদান করার পরেও কিভাবে এত নিম্নমানের সামগ্রী সরবরাহ করা হল তা তদন্ত করে দেখার আর্জি জানিয়েছি।’’ জেলা প্রশাসন সূত্রে জানানো হয়েছে, তদন্ত করে দেখা হবে কেন এই পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরও পড়ুন- মিড ডে মিলে দেওয়া হল স্কুলের গাছের আম

aamarvlog

শিক্ষা, সংস্কৃতি, স্বাস্থ্য, রান্না সহ আরও নানা কিছু। আমার ব্লগ- হাবি জাবি নয়। যোগাযোগ- ফোন ও হোয়াটসঅ্যাপ- 9434312482 ই-মেইল- [email protected]

Feedback is highly appreciated...

error: Content is protected !!
%d bloggers like this: