বিয়ের মরসুম হোক বা শীতকাল। ঘর সাজাতে আপনার প্রিয়জনের পছন্দের দিকটা নজর দিতে হবে বইকি। সময়ের গতি যে দিকেই বয়ে যাক ঘর সাজান নিজের মত করে।

মেন দরজা

বাড়িতে ঢোকার প্রবেশদ্বার যেন সব সময় পরিস্কার পরিচ্ছন্ন ছিমছাম থাকে। কাঠের দরজা সবচেয়ে ভালো। পালিশ করতে পারেন। মানানসই রঙও করা যেতে পারে।

বসবার ঘর

বাড়িতে ঢুকেই আপনার রুচির পরিচয় দেবে আপনার বসার ঘর। তাই এই ঘরটি সাজান আপনার ব্যক্তিত্বের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে। পাশের বাড়ির রায়বাবু ফলস্ সিলিংয়ে আলো বসিয়ে তিনতারা হোটেলের ছোঁয়া দিয়েছে বলে আপনাকেও দিতে হবে এমনটা কিন্তু কখনই করবেন না। প্রয়োজন থাকলে নিশ্চয়ই করবেন। তা বলে অনুকরণ একেবারেই নয়। তাতে আপনার রুচি অপ্রকাশিত থেকে যেতে পারে।

ছিমছাম অন্দরসজ্জ্বা অন্যরকম আন্তরিকতার বার্তাও বহন করে। তাই এই ঘরে একটা সুন্দর বসার জায়গার ব্যবস্থা করুন। কাঠের ফার্নিচার হতেই পারে। সামনে টিভি রাখা যেতে পারে। যদি আপনি গান শুনতে ভালোবাসেন তাহলে টিভির পাশেই সাউন্ড সিস্টেমও রাখতে পারেন। বই পড়তে ভালোবাসলে পাশে বই রাখার জন্য একটা বুকসেল্ফ তৈরী করতে পারেন। গাছের প্রতি ভালোবাসা থাকলে সিরামিক টবে একটি পাতাবাহারও সাজিয়ে রাখতে পারেন। শীতকালে বসার জায়গার সামনে একটা হ্যান্ডলুমের শতরঞ্জি রাখলে বেশ হয়। সবই হওয়ায চাই আপনার রুচি অনুয়ায়ী। তাতে বাইরের মানুষ এলে আপনার ঘরের সজ্জা দেখেই বুঝতে পারবে আপনার আভিজাত্য।

আসছি পরের পর্ব নিয়ে।

By aamarvlog

শিক্ষা, সংস্কৃতি, স্বাস্থ্য, রান্না সহ আরও নানা কিছু। আমার ব্লগ- হাবি জাবি নয়। যোগাযোগ- ফোন ও হোয়াটসঅ্যাপ- 9434312482 ই-মেইল- [email protected]

Feedback is highly appreciated...

error: Content is protected !!
%d bloggers like this: