আমাদের ইউটিউব চ্যানেলটিও সাবস্ক্রাইব করে রাখুন বিভিন্ন আপডেট পাওয়ার জন্য।

পানাগড়ঃ লাদাখের প্যাংগং হ্রদের দক্ষিণে চিনা সেনার আগ্রাসন রুখে ওই এলাকায় ভারতীয় সেনার আধিপত্য কায়েমের পিছনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিয়েছে পানাগড় সেনা ছাউনির মাউন্টেন স্ট্রাইক কোর।

মূলত দক্ষিণ তিব্বত সীমান্তে চিনের সামরিক প্রস্তুতির জবাবে ‘মাউন্টেন স্ট্রাইক কোর’ গড়ে তোলার সিদ্ধান্ত নেয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রক। পোশাকি নাম ‘ব্রহ্মাস্ত্র কর্পস’। ভারত-চিন সীমান্তের অধিকাংশই পার্বত্য অঞ্চল। তাই পার্বত্য এলাকায় যুদ্ধে সক্ষম প্রায় ৯০ হাজার সেনার বিশেষ বাহিনী ‘ব্রহ্মাস্ত্র কর্পস’ গড়া হয়েছে। স্ট্রাইক কোরের অর্থ, আক্রমণাত্মক বাহিনী। সাধারণত সীমান্তরক্ষার দায়িত্বে থাকে না। প্রধান দায়িত্ব শত্রু সেনার উপর আক্রমণ চালিয়ে দ্রুত এলাকা দখলে নেওয়া।

আরও পড়ুন- বুদবুদে তুলোর গুদামে আগুন নেভাতে কিভাবে এগিয়ে এল সেনা, দেখুন ভিডিও

মাউন্টেন স্ট্রাইক কোরের সদর দফতর পানাগড়ে। বিশেষ এই বাহিনী যাতে প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম নিয়ে দ্রুত দুর্গম এলাকায় পৌঁছে যায় সেজন্য পানাগড়ে তৈরি হয়েছে ‘সি-১৩০ জে সুপার হারকিউলিস’ বিমান ঘাঁটি। এই বিমান দুর্গম এলাকায় স্বল্প উচ্চতায় উড়তে পারে। এবড়ো-খেবড়ো রানওয়েতেও ওঠানামা করতে পারে।

খবরে প্রকাশ, সম্প্রতি মাউন্টেন স্ট্রাইক কোরই ঝটিতি অভিযান চালিয়ে প্যাংগং হ্রদের দক্ষিণের উঁচু এলাকাগুলি বিশেষ দক্ষতায় দখল করে নেয়। সহযোগিতা করে প্যারা কম্যান্ডো এবং স্পেশাল ফ্রন্টিয়ার ফোর্স। ফলে টপ এলাকাগুলি থেকে সহজেই নিচের দিকে চিনা সেনার গতিবিধি নজর রাখা সম্ভব হচ্ছে। চাপে পড়ে গিয়েছে পিএলএ।

(খবর ভালো লাগলে শেয়ার করবেন)

https://durgapur24x7.com/indian-army-gifted-20-military-horses-and-10-explosive-detection-dogs-to-bangladesh-army/

By aamarvlog

শিক্ষা, সংস্কৃতি, স্বাস্থ্য, রান্না সহ আরও নানা কিছু। আমার ব্লগ- হাবি জাবি নয়। যোগাযোগ- ফোন ও হোয়াটসঅ্যাপ- 9434312482 ই-মেইল- [email protected]

Feedback is highly appreciated...

error: Content is protected !!
%d bloggers like this: